Posts tagged ‘ফুটবল’

August 25, 2017

দিয়াগো ম্যারাডোনা: জনগণের হৃদয়ে যিনি সর্বকালের সেরা

মূল লেখার লিংক

যেকোনো বিষয়ে সেরা নির্বাচন করার মূলত দুটি পদ্ধতি আছে। এর একটি হলো, সংশ্লিষ্ট বিষয়ে দক্ষ লোক দিয়ে বিচার করা; আরেকটি হলো, সাধারণ জনগণের ভোটে নির্বাচন করা। দক্ষ লোক দিয়ে নির্বাচন করাটাই নিঃসন্দেহে বেশি গ্রহণযোগ্য পদ্ধতি। কিন্তু এর সাথে সাথে সাধারণ মানুষের নির্বাচনকেও অবজ্ঞা করা যায় না। সাধারণ মানুষের নির্বাচনে মূলত দুটো সমস্যা হয়। একটি হচ্ছে, তারা আবেগের আশ্রয় বেশি নেয়; আর দ্বিতীয়টি হচ্ছে, বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই তারা সমসাময়িকদের এগিয়ে রাখে। ফুটবলের ইতিহাসে অল্প কিছু খেলোয়াড় আছেন যারা কিনা দক্ষ বিচারক আর সাধারণ জনগণ দু’দিকের ভোটেই প্রথম দিকেই থাকেন।

এরকম একজন খেলোয়াড় হচ্ছেন দিয়াগো ম্যারাডোনা। গত শতাব্দীর সেরা খেলোয়াড় নির্বাচন করার সময় ফিফা প্রথমে সিদ্ধান্ত নেয়, ইন্টারনেটে ভোটিংয়ের মাধ্যমে সেরা নির্বাচন করা হবে। সেভাবে ভোটিংও হয়। তবে ফলাফল দেখে ফিফা কমিটি চোখে সর্ষে ফুল দেখে। ম্যারাডোনা ভোট পান ৫৩.৬%, পক্ষান্তরে পেলে পান মাত্র ১৮.৫৩%।

এরপরই ফিফা আরেকটি কমিটি গঠন করে, যেখানে ভোট গ্রহণ করা হয় তাদের অফিশিয়াল ওয়েবসাইট ও ম্যাগাজিনের পাঠক আর জুরি বোর্ডের সদস্যদের কাছ থেকে। এই নির্বাচনে পেলে প্রথম হন। শেষ পর্যন্ত গত শতাব্দীর সেরা খেলোয়াড়ের দুটো পুরষ্কার দেওয়া হয়; একটি জনগনের সেরা, আরেকটি বিশেষজ্ঞদের সেরা। অনলাইনের ভোটিং আসলে গ্রহণযোগ্যতা হারায় তখন, যখন দেখা যায় ম্যারাডোনা-পেলের পরের ক্রমগুলো হচ্ছে ইউসেবিও, ব্যাজিও, রোমারিও, ভ্যান বাস্তেন, রোনালদো লিমা। ক্রুয়েফ আছেন ১৩ নম্বরে, ডি স্টেফানো ১৪ নম্বরে, প্লাতিনি ১৫ নম্বরে। যে জায়গার ফলাফল আপনাকে দেখাবে ক্রুয়েফ, ডি স্টেফানো কিংবা প্লাতিনির চেয়ে ব্যাজিও কিংবা রোমারিও (তখন পর্যন্ত তারা ক্যারিয়ার শেষ করেননি) ভালো, সেই ভোট গ্রহণ করা আসলে কষ্টকর। এছাড়া অনলাইনে সাধারণত নতুন প্রজন্মের মানুষরাই ভোট দিয়েছিল। কিন্তু প্রশ্ন হচ্ছে, শতাব্দীর সেরা নির্বাচন করার মতো এত বড় বিষয়ে এই দিকগুলো ফিফা কমিটি আগে খেয়াল করল না কেন, কেন নির্বাচনটি প্রশ্নবিদ্ধ হলো। যদি অনলাইনের বিচারেও পেলে সেরা হতো, তখন কি আরেকটি নির্বাচন করা হতো?


সবচেয়ে বড় বিতর্কের দুই পাত্র

read more »

Advertisements
March 22, 2017

ক্ষনজন্মা এক পাখি কিংবা প্রজাপতির গল্প

মূল লেখার লিংক

বাবা পাড় মাতাল, সারাদিন আকন্ঠ মদে নিমজ্জিত থাকতেন, কে জানে সেই কারনেই কিনা জন্মেই সমস্যা ছিল পায়ে। এক পা অন্য পায়ের চেয়ে ছয় সেন্টিমিটার ছোট! সাথে বা পায়ের পাতা বাকানো। কিন্তু বিধাতা যার পায়ে যাদু ঢেলে দিবেন বলে ঠিক করেছেন তাকে আটকানোর সাধ্য আছে কি এসব বাধার? না তাকে পায়ের প্রতিবন্ধকতা আটকাতে পারেনি, আটকে গিয়েছিলেন নিজের স্বেচ্ছাচারিতার কাছেই। সে গল্প পরে হবে। আসুন এখন তার যাদুর শুরুটা কোথায় তা দেখি।

read more »

February 19, 2017

একটি বিশ্বকাপ, একজন পেলে এবং দুই ভাইয়ের চূড়ান্ত দ্বন্দ্বের ইতিহাস

মূল লেখার লিংক
ভাগ হয়ে গেলো এককালে দুই সহোদর অ্যাডলফ ও রুডলফ ড্যাজলারের হাত ধরে যাত্রা শুরু করা জুতা তৈরির প্রতিষ্ঠান Gebrüder Dassler Schuhfabrik, বিভক্ত হয়ে গেলো প্রতিষ্ঠানের কর্মীরাও। আশ্চর্যজনক ব্যাপার হলো- প্রাতিষ্ঠানিক এ বিভক্তি চূড়ান্ত বিভেদ টেনে ছিলো তাদের দুই পরিবারের সদস্য ছাড়া অন্যান্যদের মাঝেও।

Gebrüder Dassler Schuhfabrik
দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ চলাকালীন বোন মেরি চেয়েছিলেন তার দুই ছেলেও যাতে ভাইদের এ কোম্পানিতে চাকরি করে। তবে সেই প্রস্তাব আমলে নেন নি রুডলফ। পরিবারের সদস্যদের মাঝে আর কোনো অনাকাঙ্ক্ষিত ঝামেলার সূত্রপাত এড়াতেই এমন সিদ্ধান্ত নেন তিনি। ফলে মেরির দুই ছেলে যুদ্ধে চলে যায়। এরপর আর কখনোই ফিরে আসে নি তারা। এজন্য তিনি কোনোদিনই রুডলফকে ক্ষমা করতে পারেন নি। তাই তিনি থাকতে শুরু করেন অ্যাডলফের পরিবারের সাথে। ওদিকে তাদের বাবা মারা গিয়েছিলো আগেই। বড় ছেলের প্রতি আলাদা টান ছিলো মা পলিনার। তাই আমৃত্যু তিনি তাদের সাথেই কাটিয়ে দেন।

read more »

December 28, 2016

ক্রুশিয়াল ম্যাচ – সর্বকালের সেরা নির্ধারণের গুরুত্বপূর্ণ মানদন্ড

মূল লেখার লিংক

১.
সর্বকালের সেরা ব্যাটসম্যান কে? ব্র্যাডম্যান, ভিভ রিচার্ডস, শচীন টেন্ডুলকার, ব্রায়ান লারা, গ্যারিফিল্ড সোবার্স, জ্যাক হবস – এমন কিছু নাম আপনার মাথায় আসবে।
সর্বকালের সেরা ফুটবলার কে? পেলে, ম্যারাডোনা, ক্রুয়েফ, ডি স্টেফেনো, জিদান, মেসি – এরকম কিছু নাম আপনার মাথায় আসবে।

read more »

December 1, 2016

নব্বইয়ের দশকের ব্যালন ডি’অর-রা আজ কোথায়

মূল লেখার লিংক

f2a85f04-2234-11e5-9284-67c29bc2c836

ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো অথবা লিওনেল মেসি। শেষ সাত বছর ব্যালন ডি অর পাওয়ার বিষয়ে এই দু’টি নামের অন্যথা দেখেনি ফুটবলবিশ্ব। চলতি বছরেও এই নিয়মের হেরফের হওয়ার সম্ভাবনা প্রায় নেই বললেই চলে। অথচ একটা সময় ছিল, যখন প্রতি বছর আলাদা ফুটবলার বিশ্ব সেরা এই পুরস্কার পেত। লোথার ম্যাথেউজ থেকে মার্কো ফন বাস্তেন, বিখ্যাত ফুটবলারদের ছড়াছড়ি সেই তালিকায়।

read more »

September 21, 2016

আবাহনী-মোহামেডানের ‘সন্ধি’ হয়েছিল যেদিন

মূল লেখার লিংক
আবাহনী-মোহামেডানের সন্ধির ইতিহাস গড়েছিলেন সে সময়ের দুই অধিনায়ক রনজিত সাহা ও শেখ আসলাম। ছবি: সংগৃহীত
আবাহনী-মোহামেডান নাম নিতেই একটা যুদ্ধংদেহী দৃশ্যপট চোখের সামনে ভেসে ওঠে। এখন হয়তো এই লড়াই রং হারিয়েছে, কিন্তু ৩০ বছর আগে ব্যাপারটা তো ছিল এমনই। কাঁটাতারের বেড়া দিয়ে গ্যালারিতে বিভক্ত হয়ে থাকা দুই দলের সমর্থককুলেও তো সে সময় যুদ্ধ-যুদ্ধ ভাবটা দেখা যেত। কিন্তু যুদ্ধের ময়দানে দাঁড়িয়েই দুই দলের সৈনিকদের ‘সন্ধি’—ব্যাপারটা একটু কেমন শোনায় না!

read more »

June 15, 2014

ফুটবল ইতিহাসের স্মরণীয় সেরা দশটি ছবি

মূল লেখার লিংক

বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় খেলা ফুটবল। আর এ খেলা ঘিরেই রয়েছে হাজার লক্ষ ঘটনা, নাটকীয়তা। এর মাঝে কিছু ঘটনা বা নাটকীয়তা ফুটবল ইতিহাসে চিরস্মরণীয় স্থান দখল করে নিয়েছে।  এর মাঝে থেকে সেরা দশটি ছবি নিয়েই আজকের এই ফটোফিচার। আসুন দেখে নেই ছবিগুলো, জেনে নেই এর ইতিহাস।

read more »

May 21, 2014

বড় বড় পতাকা নিয়ে ছোট ছোট তিনটা গল্প

মূল লেখার লিংক

এক
রায়হান খুব মনোযোগ দিয়ে ফেসবুকে তার বন্ধু মাসুদের স্ট‌্যাটাস আর কমেন্টগুলো পড়ছিল। সকালেই রিলেশনশিপ স্ট্যাটাস বদলেছে মাসুদের, সেটা নিয়ে তুমুল ঝড় চলছে মাসুদের ফেসবুক ওয়ালে। পাশের ঘর থেকে মা আর কাজের বুয়ার আলাপ কানে আসছে; বুয়ার জামাই নাকি রিক্সা চালাতে গিয়ে দুর্ঘটনায় পড়েছে গতকাল সন্ধ্যায়। ডাক্তার আর ওষুধপত্র বাবদ নাকি অনেক খরচও হয়েছে। তাই, এমাসের বেতনটা অগ্রিম চাচ্ছে বুয়া।

read more »

May 2, 2014

ব্রাজিলের জাতীয় কান্না

মূল লেখার লিংক

সময়টা ১৯৫০ সালের ১৬ জুলাই।দুই লাখ দর্শক ধারণক্ষমতা সম্পন্ন ব্রাজিলের মারাকানা স্টেডিয়াম।বিশ্বকাপ ফুটবলের ফাইনাল খেলা চলছে।স্বাগতিক ব্রাজিলের প্রতিপক্ষ প্রথম বিশ্বকাপ ফুটবলের চ্যাম্পিয়ন উরুগুয়ে।ফাইনালের আগের দু’ম্যাচে প্রতিপক্ষের জালে ১১ গোল দিয়ে এসেছে স্বাগতিক ব্রাজিল।ফাইনালেও তাদের জয় প্রায় নিশ্চিত।পুরো ব্রাজিল প্রস্তুত উৎসবের রঙে নিজেদের রাঙানোর জন্য।

read more »

March 21, 2013

ফুটবল বিবর্তনঃ ট্যাকটিকসের সৃষ্টি এবং বিলুপ্তি

মূল লেখার লিংক
একটা সময় ছিল যখন ফুটবলে “ওয়ান ম্যান শো” ব্যাপারটা হরহামেশাই দেখা যেত । ৮৬ এর ম্যারাডোনার কথাই ধরুন । রীতিমত একা হাতে (নাকি পায়ে ?) আর্জেন্টিনাকে এনে দিয়েছিলেন তাদের দ্বিতীয় বিশ্বকাপের শিরোপা । কিংবা ধরুন ৯৮ এবং ০৬ এর জিদান এর কথা । ৯৮ এ ফ্রান্সের দলটা অবশ্য খুবই ব্যালান্সড ছিল । শুরু থেকেই তারা ভালো খেলছিল । রক্ষণে লেবেউফ-দেসাইলি-ব্লাঙ্ক । মধ্যমাঠে জিদান, পেতিত , ভিয়েরা , দেশম , কারেমবেউ । আর সামনে ডিওরকায়েফ সাথে তরুন অনরি । গোলবারের নিচে বিশ্বস্ত প্রহরী ফ্যাবিয়ান বারথেজ । দুর্দান্ত ফর্মে থাকা ব্রাজিলকে রীতিমত নাকানিচুবানি খাইয়ে ফাইনালে ৩-০ গোলে জিতেছিল ফ্রান্স । যার দুই গোলই জিদানের করা । কিন্তু ০৬ এর কথা ? বিশকাপে খেলতে পারবে কিনা সে আশঙ্কাতেই অবসর ভেঙে প্রত্যাবর্তন করেন জিদান । পরেরটুকু তো ইতিহাস । কোনোমতে গ্রুপ পর্ব পেরুনো দলটিকে নিয়ে তিনি একক দক্ষতায় পার করেছেন একে একে স্পেন , পর্তুগাল , ব্রাজিল এর মত বাধা । আর ফাইনালে যদি মাতেরাজ্জিকে সেই বিখ্যাত ঢুশটি না মারতেন তাহলে হয়তো শিরোপাও পেতে পারতো ফ্রান্স ।
কিন্তু আজকাল কিন্তু এই ওয়ান ম্যান শোর দাপট কমে গিয়েছে – যদি না হিসেবটা মেসি-রোনালদোকে সহ করেন । এর কারণ কি ? কারণ হিসেবে বলা যায় ট্যাকটিকসের পরিবর্তন । একটা উদাহরন দেই । ২০০২ সালের বিশকাপ জেতা ব্রাজিলের ফরমেশন ছিলঃ ৪-৪-২ , যেটা কিনা কার্যক্ষেত্রে ২-৪-৩-১ এর মত হয়ে যেত ।

read more »

September 19, 2012

মেসি – ফুটবল আকাশের এক উজ্জ্বল নক্ষত্র

মূল লেখার লিংক
লিওনেল আন্দ্রেস মেসি এমন একটা নাম যারা ফুটবল খেলা দেখেন অথবা বোঝেন তারা সবাই এক নাম এ চিনবেন। যিনি মাত্র ২৫ বছর বয়সে নিজেকে এবং ফুটবল খেলা কে এমন এক পর্যায়ে নিয়ে গেছেন যা হয়তো কেও কোনদিন কল্পনা ও করতে পারে নাই। তাঁর পায়ের জাদু তে মুগ্ধ হয় নাই এমন লোক খুজে পাওয়া যাবে কি না সন্দেহ। আর যারা তাঁকে নিয়ে উল্টাপাল্টা কথা বলবে আসলে তারা হিংসাতে বলবে। কারন সেই সব লোক এর পছন্দের খেলোয়াড় রা হয়তো সেই পর্যায়ে কোন দিন পৌছাতে পারবে না যে পর্যায়ে মেসি নিজে কে নিয়ে গেছেন এবং আরও উপরে যাবেন।

চলুন আজ দেখে নেই মেসি সম্পর্কে কিছু তথ্য

মেসি ১৯৮৭ সালের ২৪ শে জুন আর্জেন্টিনার ছোট্ট শহর রোজারিও তে খুবই দরিদ্র পরিবারে জন্মগ্রহন করেন। বাবা জর্জ হোরাসিও মেসি একজন স্টিল মিলের কর্মচারী, মা সেলিয়া মারিয়া ছিলেন একজন পার্ট টাইম পরিচ্ছন্নতা কর্মী। মেসির আছে বড় দুই ভাই রদ্রিগো এবং মাটিয়াস আর একটা আদরের বোন মারিয়া। মেসির বয়স যখন ৫ তখন থেকেই তাঁর বাবার তত্ত্বাবধানে পরিচালিত দল গ্রান্দলি তে খেলা শুরু করেন। ১৯৯৫ সালে নিওয়েলস ওল্ড বয়েস ক্লাবে খেলা শুরু করেন যেটি ছিল তাঁর শহর রোজারিওতেই ।

read more »

July 8, 2012

সদ্য প্রকাশিত ফিফা র‌্যাঙ্কিং এবং কিছু কথা

মূল লেখার লিংক
র‌্যাঙ্কিং বিষয়ে মানুষের প্রতিক্রিয়া খুবই বিচিত্র। যেমন, বিশ্ববিদ্যালয় র‌্যাঙ্কিং-এ নিজের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নেমে গেলে সেই র‌্যাঙ্কিং “গাঁজা খাওয়া” র‌্যাঙ্কিং হিসেবে উপাধি পায়, আবার একই র‌্যাঙ্কিং-এ নিজের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান উপরে উঠলে লোকে মুচকি মুচকি হাসে।

তবে যে যাই বলুক, আমার মনে হয় বিশ্ববিদ্যালয় র‌্যাঙ্কিং বিষয়টা বড়ই ক্যাচালের। বিভিন্ন পত্রিকার করা এসব র‌্যাঙ্কিং এর পেছনে টাকার অবদান যে নেই, তাও জোর দিয়ে বলা যায় না। তাছাড়া ওগুলো কম্পাইল করতে যে ডেটা নেয়া হয়, সেটা কীভাবে এবং কতটা নির্ভরযোগ্য সূত্র থেকে সংগ্রহ করা হয়, তাও একটা বড় প্রশ্ন বটে। সেই তুলনায় বিভিন্ন খেলার র‌্যাঙ্কিং, যেমন ফিফার করা ফুটবলের, ফিডের করা দাবার, এটিপির করা টেনিসের এবং আইসিসির করা ক্রিকেটের র‌্যাঙ্কিং ঢের ভালো। এগুলোর পদ্ধতি নিয়ে প্রশ্ন উঠতে পারে কিন্তু অবস্থান নিয়ে প্রশ্ন ওঠার উপায় নেই।

read more »

July 2, 2012

বাংলাদেশের ফুটবল

মূল লেখার লিংক
বাপ-দাদাদের মুখে শুনে আর পেপার পত্রিকা পড়ে জেনেছি আগের দিনে আবাহনী মোহামেডানের খেলা হলে নাকি সারা দেশে ফুটবলের অন্তত কিছুও যারা জানে তারা নাকি দুই ভাগে ভাগ হয়ে যেত। খেলার সপ্তাহখানেক আগে থেকে চায়ের টেবিলে, দোকানের বেঞ্চে, স্টেডিয়াম পাড়ায় চলত ম্যাচের গবেষনা আর ম্যাচের পর সপ্তাহখানেকের বেশি সময় ধরে চলত ম্যাচের পোস্টমর্টেম। এখনকার প্রজন্মের খুব কম ছেলেমেয়েই আছে যারা বাংলাদেশের ফুটবল তথা ঘরোয়া ফুটবলের কোন খোজখবর রাখে। জানি না সুদূর ভবিষ্যতে এমন দিন আসবে কিনা যখন তরুন ছেলেমেয়েরা আদৌ বিশ্বাস করবে আমাদেরও একটা ফুটবল ঐতিহ্য ছিল এবং সালাহউদ্দিন, সালাম মুর্শেদী, আসলাম, কায়সার হামিদ, সাব্বিররা একেকজন এমন সেলিব্রেটি ফুটবলার ছিলেন যাদের খেলা দেখতে তো বটেই প্র্যাকটিস দেখার জন্য পর্যন্ত মাঠে ভীড় জমত। আমি ফুটবলবোদ্ধা নই। আমি খুব সাধারন একজন ফুটবলপ্রেমী। পত্রপত্রিকার মাধ্যমে দেশের ফুটবলের নিয়মিত খোজখবর রাখার চেষ্টা করি। আমার কাছে মনে হয় আমাদের ফুটবল একটা গন্ডি থেকে কেন যেন বের হতে পারছে না। দশ বছর আগে যে অবস্থায় ছিল এখন তার থেকে উন্নতি তো হয়নিই বরং আরো খারাপ হয়েছে।

read more »

June 11, 2012

জেনে নিন- কিভাবে ফিফা বিশ্বর‌্যাংকিং করা হয় এবং কিভাবেই বা পয়েন্ট হিসেব করা হয়

মূল লেখার লিংক

> শেষ চার বছরের পয়েন্ট একত্রে যোগ হবে।
> গড় পয়েন্ট যোগের সময় লাষ্ট ১২ মাসের হিসেব হবে।

> একটি খেলা থেকে কিভাবে পয়েন্ট গণনা করা হয়!!!
একটি খেলার পয়েন্ট গণনা হয় চারটি বিষয়ের উপর নির্ভর করে।

P = M x I x T x C

read more »

September 25, 2010

অফসাইড, মজার এবং আশাজাগানো এক ইরানী মুভি- একটা রিভিউ পোস্ট নামের কলঙ্ক

Panahi-i-Berlin.jpg

জাফর পানাহীরে চিনেন? কিংবা মজিদ মালিকী? বা আব্বাস কিয়োরোস্তোমি? বা মাখমলবাফ(কি বিদঘুইট্যা বানান! ঠিক হইলোতো?) গুষ্টি? আচ্ছা বাদ দ্যান, এই মুভিগুলার নাম শুনছেন, চিলড্রেন অফ হ্যাভেন, টেস্ট অফ চেরী, কালার অফ প্যারাডাইস?আশাকরি বেশিরভাগই বুইঝ্যা ফেলাইসেন যে আমি ইরানী মুভির কথা কইতাসি।

read more »