Posts tagged ‘চর্যাপদ’

June 10, 2017

আমাদের চর্যাপদ : একটি সরল আলোচনা

মূল লেখার লিংক
চর্যাপদ নিয়ে প্রথম এবং চরমতম কথা হলো, এটা বাংলা সাহিত্যের প্রাচীনতম, এবং বাংলা সাহিত্যের প্রাচীনযুগের একমাত্র নিদর্শন। বাংলা সাহিত্যের প্রাচীনযুগের এই একটাই নিদর্শন পাওয়া গেছে। তবে তার মানে এই নয়, সে যুগে বাংলায় আর কিছু লেখা হয়নি। হয়তো লেখা হয়েছিল, কিন্তু সংরক্ষিত হয়নি। কেন হয়নি, সেটা পরের আলোচনা।

Charyapada

আমাদের চর্যাপদ

চর্যাপদ রচিত হয় ৮ম থেকে ১২শ শতকের মধ্যে। এর মধ্যে ঠিক কোন সময়ে চর্যাপদ রচিত হয়, তা নিয়ে বেশ বিতর্ক আছে। একেকজন একেক সময়কালের কথা বলেছেন। অনেক দাবি করেছেন, এর রচনাকাল আরও আগে। তবে মোটামুটি গ্রহণযোগ্য মত এটাই।

read more »

Advertisements
July 30, 2014

আমাদের বাঙলা সাহিত্য: অন্ধকারের দিনগুলি

মূল লেখার লিংক
বাঙলা সাহিত্যের প্রথম নিদর্শন বলে যে পুস্তিকাটিকে স্বীকৃতি দেয়া হয়, তার নামটা বেশ রহস্যময়। পুস্তিকাটির নাম চর্যাপদ। এই পুস্তিকাটির আরও কয়েকটা নাম আছে। অনেকে একে ডাকেন চর্য্যাচর্য্যবিনিশ্চয় নামে, কেউ আবার ডাকেন চর্য্যাশ্চর্য্যবিনিশ্চয় নামে। বড্ড বিদঘুটে নাম, বলতেই হয়। তবে আজকাল একে চর্যাপদ নামেই ডাকতে আমরা স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করি, তুলনামূলকভাবে যথেষ্টই সহজবোধ্য নাম।

বিশেষজ্ঞদের মতে এই চর্যাপদ রচিত হয়েছিল ৯৫০ থেকে ১২০০ সালের মাঝামাঝি কোন একটা সময়ে। বলা হয়ে থাকে, এরপরেই বাঙলা সাহিত্যের দুনিয়ায় নেমে আসে এক করুণ অন্ধকার, যে আঁধার টিকেছিল প্রায় দেড়শ’ বছর!

আচ্ছা, সাহিত্যের কি কখনও অন্ধকার সময় আসতে পারে? সাহিত্য নিজেই তো একটি দ্বীপ জ্বালা আলো, সে কেমন করে অন্ধকারের আড়ে রূপ আড়াল করবে?

read more »

June 10, 2013

বাংলা ভাষায় মুদ্রিত প্রথম বই

মূল লেখার লিংক
বাংলা ভাষার সবচেয়ে পুরনো এবং প্রথম বই চর্যাপদ। কিন্তু প্রথম মুদ্রিত বই কোনটি?

ভাষা মানুষের ভাব প্রকাশের প্রধান মাধ্যম। অন্যভাবে বলা যায়, মুখ দিয়ে শব্দ করে ভাব প্রকাশের পদ্ধতিই হল ভাষা। বাংলা তোমার-আমার মায়ের ভাষা। এ ভাষায় আমরা কথা বলি, পড়ি, লিখি, আবার স্বপ্নও দেখি। মনে প্রশ্ন জাগতে পারে, আমাদের এ প্রাণের ভাষার প্রথম বই কোনটি?

read more »

February 17, 2012

বাংলা ভাষার প্রথম ব্যাকরণ ও উপন্যাস কে লিখেছিলেন?

১।

হাতের কাছে কোনো বাংলা ব্যাকরণ বই নেই। তবে ছোটবেলায় বাংলা ব্যাকরণের যে সংজ্ঞা মুখস্থ করতে হয়েছিলো তা হয়তো সবার এখনো মনে আছে-

যে পুস্তক পাঠ করিলে বাংলা ভাষা শুদ্ধরূপে লিখিতে, পড়িতে ও বলিতে পারা যায় তাহাকে বাংলা ব্যাকরণ বলে।

খেয়াল করে দেখুন- শুধু বাংলায় লেখা-পড়া নয়; যে বই পড়ার ফলে আমরা শুদ্ধরূপে আমাদের ভাষায় কথাও বলতে পারি তাকে বাংলা ব্যাকরণ বলে।

বাংলা ভাষার উৎপত্তি কেবল তিন-চারশ বছর আগে নয়। হরপ্রসাদ শাস্ত্রী হাজার বছর আগে বাংলা ভাষায় লিখিত ‘চর্যাপদ’ আবিষ্কার করেছিলেন। লুইপা, কাহ্নপা, শবরপারা এ ভাষায় সে সময় পদ রচনা করেছেন।

read more »