মারকাভা ব্যাটেল ট্যাংক – ইসরাইলের সমর প্রতীক

Merkava_2_Israeli_01.jpg
“মারকাভা” ব্যাটেল ট্যাংক ইসরাইলের স্টান্ডার্ড ব্যাটেল ট্যাংক। এটাকে ইসরাইলের সমর সক্ষতার বা দম্ভের প্রতীক হিসাবে গন্য করা হয় ।১৯৮০ সালে সার্ভিসে আসার পর থেকে প্রায় ২২ বছর এই ট্যাংক ছিলো অজেয়।
z_merkava_2.jpg
মারকাভা তৈরির এর পেছনের কাহিনি ইজরাইলিদের জন্য বেশ কষ্টকর। ১৯৭৩ মিসর সাইনাই মালভূমি ইজরাইলিদের থেকে পুনঃদখল করার জন্য হাজার দুয়েক সৈন্য প্রেরন করে। যারা কিনা সোভিয়েত সরবরাহকৃ্ত ওয়ার গাইডেড এন্টি-ট্যাংক মিসাইল দ্বারা সজ্জিত ছিলো। এদিকে ইজরাইলিরা মিসরকে ডিফেন্স করার জন্য তাদের ব্রিটিশ সেন্চুরিয়ান এবং আমেরিকান প্যাটিন ট্যাংকের বহর পাঠায়। কিন্তু বিশ্বের প্রথম এন্টি-ট্যাংক মিসাইলের সেই যুদ্ধে ইজারাইলিরা তাদের সব ট্যাংক হারায় এবং মারা যায় প্রায় ৪০০ ক্রু এবং সৈন্য :|। এর পরে ইজরাইলিরা তৈরি করে তাদের চলন্ত দুর্গ “মারকাভা”
merkava3d26pb.jpg
“মারকাভা” সার্ভিসে আসে ১৯৮০ সালে ।এবং ১৯৮৪ সালে প্রথম লেবাননে এর ব্যবহার করা হয়, ফলাফল ছিলো মারাত্বক। কারন লেবাননের কোন ৪ স্কোয়াড্রন ট্যাংককে ধ্বংস করেছিলো মারকাভার একটি স্কোয়াড্রন।
মারকাভার এর অন্যতম বৈশিষ্ট্য ছিলো এর শক্তিশালী আর্মার। এর আর্মার তৈরি করা হয়েছে ষ্টিল এবং নিকেল দিয়ে যা ভেদ করা রীতিমত অসম্ভব। এই ট্যাংকের মেইনগান ছিলো ১২০এমএম :|
এর ভিতরে ছিলো শীতাতপ নিয়ন্ত্রন ব্যবস্থা। যা কিনা সৈন্যদের গ্যাস বোমা হামলা থেকে ৩ ঘন্টা পর্যন্ত বাচাতে পারত।
সবমিলিয়ে এটি হয়ে উঠেছিলো ইজরাইলিদের সমর সক্ষমতার প্রতীক ।
merkava2b_idf2.jpg

বিবরণ :
ডিজাইনার : Israel Military Industries
ভর : ৬৫ টন
ইন্জিন: ১৫০০ হর্স পাওয়ার (১, ১১৯ কিলোওয়াট) টার্বোচার্জড ডিজেল ইন্জিন
ফুয়েল ক্যাপাসিটি: ১৪০০ লিটার :-/
মেইনগান: ১২০ এমএম এটিজিএম ক্ষেপনযোগ্য
সেকন্ডারি গান: একটি ১২.৭ এমএম এন্টি এয়ারগান
দুইটা ৭.৬৬ এমএম মেশিনগান
১২ টা স্মোক গ্রেনেড
একটা ৬০ এমএম ইন্টারনাল মর্টার লাউন্চার
অপারেশনাল রেন্জ : ৫০০ কিলোমিটার
merkava_mk4.jpg

শক্তিশালী এই মারকাভার সাহায্যেই ইজরাইলিরা শাসন করেছে প্যালেস্টাইন , লেবানন । অসংখ্য আত্বঘাতীর মাঝেও এই ট্যাংক রক্ষা করে গিয়েছে তার ক্রু এবং সৈন্যদের । যে কারনে এই ট্যাংককে ইজরাইলিরা ডাকতো “Gods Chariot” বা খোদার রথ নামে ।

হাজার নির্যাতিত প্যালেস্টাইন যুবকের ইচ্ছা ছিলো এই Gods Chariot কে ধ্বংস করার :|। কিন্তু ৬৫ টনের আত্যাধুনিক সেই দানবকে মারার জন্য প্রয়োজনীয় গোলা বারুদ হীন যুবকেরা কি পারবে?? কিভাবে পারবে তারা??
কিন্তু তারা সফল হয়েছিলো ইজরাইলিদের সেই Gods Chariot কে নুন্যতম কিছু গোলাবারুদ দিয়ে ধ্বংস করতে :D। আজকে আর নয় কারন মারকাভার পতন নিয়ে লিখতে গেলে অনেক কিছুই লিখতে হবে যা এই পোষ্ট কে উপন্যাস বানায়ে দিবে। সো এই নিয়ে আগামীতে আলাদা একটা পোষ্ট দিবো ।

মূল লেখার লিংক
http://www.somewhereinblog.net/blog/sadharonmanush/29190414

লেখাটির ব্যাপারে আপনার মন্তব্য এখানে জানাতে পারেন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: